নবাবগঞ্জে এক ছাত্রীকে জোরপূর্বক উঠিয়ে নিয়ে ধর্ষণ


মোঃ মামুনুর রশিদ,নবাবগঞ্জ (দিনাজপুর)থেকেঃ
দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে এক ছাত্রী প্রাইভেট পড়তে যাওয়ার সময় রাস্তায় বেরিকেড দিয়ে জোরপূর্বক একটি মাইক্রোবাসে উঠিয়ে নিয়ে যায় দুষ্কৃতিকারীরা এবং পরে তারা বিরামপুরে একটি বাড়িতে জিম্মি করে তাকে ধর্ষণ করে। ভিকটিম নবাবগঞ্জ উপজেলার মতিহারা উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী। জিম্মি হওয়ার পরদিন সকালে নির্যাতিতা ওই স্কুল ছাত্রী কৌশলে পালিয়ে এসে তার বাবাকে ঘটনা জানায়। এরপর তার বাবা বিরামপুর থানায় যোগাযোগ করে বাড়ি ও অভিযুক্তকে শনাক্ত করেন।
মেয়ের বাবা জানান, বিরামপুর উপজেলার জানিপুর গ্রামের মৃত শহিদের পুত্র সোহান ও তার সহযোগী মামুনুর রশিদ বিরামপুর শহরে একটি বাড়িতে জিম্মি করে তার মেয়েকে ধর্ষণ করে।
১২ এপ্রিল বৃহস্পতিবার মেয়েটির বাবা নবাবগঞ্জ উপজেলার ৫ নং পুটিমারা ইউপি চেয়ারম্যান মো. সরোয়ার হোসেনকে সঙ্গে নিয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মশিউর রহমানকে বিষয়টি অবহিত করেন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার জানান, সঠিক ও নিরপেক্ষ তদন্ত করে অভিযুক্তদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান। মেয়ের পিতা অভিযোগ করে জানান, সপ্তাহ খানেক আগে থেকেই মুঠোফোনে তাকে হুমকিও দেয়া হয়েছিল।এ বিষয়ে নবাবগঞ্জ থানায় যোগাযোগ করা হলে অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুব্রত কুমার সরকার জানান, তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।#

Print Friendly, PDF & Email

Comments are closed.