এশিয়া মহাদেশের সর্ববৃহৎ আম গাছের আমগুলি বিক্রি হলো দেড় লাখ টাকায়

মো: জুনাইদ কবির,ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধি: ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার হরিণমারীতে অবস্থিত এশিয়া মহাদেশের সর্ববৃহৎ সূর্যপুরী জাতের আম গাছের আমগুলি দেড় লক্ষ টাকায় বিক্রি করা হয়েছে। পৈত্রিকসুত্রে মালিকানা পাওয়া সাইদুর রহমান ও নূর ইসলাম এ গাছের আমগুলি বিক্রি করেছেন পাশের গ্রামের সোলেমান আলীর নিকট।

আম ক্রয়কারী সোলেমান আলী জানান, ‘দেড় লাখ টাকায় তিন বছরের জন্য গাছটি লিজ নিয়েছি। ফলন মৌসুমে গাছটি আমাকে দেখাশোনা করতে হয়। এ বছর ভালোই আম ধরেছে। তবে আম ঝরে পড়ছে। তারপরও আশা করছি প্রায় ৮০ মণের মতো আম পাওয়া যাবে।’

গাছ মালিক নূর ইসলাম বলেন, ‘সূর্যপুরী জাতের এই গাছটির আম খুবই সুস্বাদু ও মিষ্টি। আগে মৌসুমে ১০০ মণের বেশি আম পাওয়া গেলেও এখন ৭০ থেকে ৮০ মণ আম পাওয়া যায়। দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে অনেক মানুষ অগ্রিম টাকা দিয়ে রাখে আমের জন্য।’ তবে তিন বছরের জন্য কেনা সব আম অগ্রিম বিক্রি হয়ে গেছে বলে তিনি জানান।

গাছটি নিয়ে ভবিষ্যত পরিকল্পনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘পিকনিক স্পট গড়ে তোলার ইচ্ছে আছে। সরকারি পৃষ্ঠপোষকতা পেলে দ্রুত সময়ে দর্শনার্থীদের জন্য পিকনিক স্পট গড়ে তোলা সম্ভব হবে।’

ঠাকুরগাঁও জেলা ও বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা প্রশাসন এবং গাছটি দেখতে আসা দর্শনার্থীরা গাছটির পাশে একটি পর্যটন কেন্দ্র অথবা বিনোদন কেন্দ্র হিসেবে গড়ে তোলার জন্য ইতিমধ্যে বিভিন্ন ধরনের আশ্বাস দিয়ে গেছেন এবং এ নিয়ে কয়েকটি মত বিনিময় সভাও করেছেন আমগাছ চত্বরে।

উল্লেখ যে, আমগাছটি ইতিমধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপচার্য ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক এবং গত মাসে প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিক উপদেষ্টা ড. গওহর রিজভী পরিদর্শন করেছেন এবং পরিদর্শনের সময় গাছটিকে একটি পর্যটন কেন্দ্র হিসেবে গড়ে তোলার আশ্বাস দিয়েছেন। #

Print Friendly, PDF & Email

Comments are closed.