উত্তরাঞ্চলে জ্বালানি সরবরাহে যুগান্তকারী ভুমিকা রাখছে পার্বতীপুর রেল হেড ডিপো


জাকির হোসেন।। পার্বতীপুরের অহংকার দিনাজপুরের পার্বতীপুরে অবস্থিত উত্তরাঞ্চলীয় একমাত্র জ্বালানি তেল সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান বিপিসি”র পিওএল, রেল হেড ডিপো। উত্তরাঞ্চলের আর্থসামাজিক উন্নয়নে তেল ডিপোটি বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। ৯ সেপ্টেম্বর রোববার জ্বালানি সরবরাহ ও বিতরণের বিষয়ে খোঁজখবর নিতে গিয়ে জানা যায় এ ডিপো থেকে ডিজেল সরবরাহে কোন প্রকার সংকট নাই। —————–চাহিদা অনুযায়ী পেট্রল ও কেরোসিন তেলও এখান থেকে সরবরাহ দেওয়া হয়। সেচ মৌসুমে উত্তরাঞ্চলীয় ৮ জেলার কোম্পানি অনুমোদিত ডিলার ও এজেন্টদের মাঝে (৩ কোম্পানি) প্রতিদিন প্রায় ২৪ লক্ষ লিটার ও মৌসুম ছাড়াও প্রতিদিন প্রায় ৮ লক্ষ লিটার ডিজেল সরবরাহ দেওয়া হয়ে থাকে এ ডিপো থেকে। যা কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালকবৃন্দ সার্বক্ষণিক মনিটরিং করে থাকেন। ১ কোটি ৭৮ লক্ষ (প্রায়) লিটার ধারণ ক্ষমতা সম্পন্ন এ ডিপোতে ভারত ও খুলনার দৌলতপুর থেকে ডিজেল আসে। ১৯৯৯ সালে প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর থেকে ডিপোতে এযাবতকাল কোন সংকট দেখা দেয়নি। এ ডিপো টির মাধ্যমেই উত্তরাঞ্চলের জ্বালানি চাহিদা মিটানো সম্ভব হচ্ছে। মাঠ পর্যায়ে খোঁজখবর নিয়ে তেল সরবরাহে এ ডিপোর বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। তদুপরি আরো ৪ কোটি ২৩ লক্ষ (প্রায়) লিটার ডিজেল ধারণ ক্ষমতা সম্পন্ন ৬ টি ট্যাং স্থাপনের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানা গেছে। যা কিনা হবে উত্তরাঞ্চলীয় জ্বালানি সরবরাহের ক্ষেত্রে এক যুগান্তকারী পদক্ষেপ। কথা হয় ডিপো ইনচার্জ মোঃ হেমায়েত উদ্দিনের সাথে সেসময় তার পাশে ছিলেন মেঘনার ডিপো ব্যবস্থাপক লুৎফর রহমান, যমুনার সিনিয়র অফিসার আবুল ফয়েজ মোঃ সাদেকীন, সিনিয়র এসিস্টেন আবু সালাম প্রমুখ। জানতে চাইলে ভারত থেকে এ ডিপোতে সরাসরি পাইপলাইনের মাধ্যমে জ্বালানি তেল (ডিজেল) আনার কাজটি প্রক্রিয়াধিন আছে বলে জানান তিনি। সম্প্রতি বাংলাদেশ পেট্রলিয়াম কর্পোরেশন এর চেয়ারম্যান আকরাম-আল – হোসেন পদ্মা,মেঘনা ও যমুনা অয়েল এর ব্যবস্থাপনা পরিচালকদের সঙ্গে নিয়ে পার্বতীপুর রেল হেড ডিপো পরিদর্শনে আসেন। সেখানে স্থানীয় সাংসদ, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী মহোদয়ের উপস্থিতিতে ডিপো সম্প্রসারণের বিষয়টি উঠে আসে। সিদ্ধান্ত আসে ডিপো সম্প্রসারণ কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার।

সম্প্রসারণ কাজ প্রক্রিয়াধীন। আশা করা হচ্ছে অল্প সময়ের মধ্যে কাজ সম্পন্ন হবে। কাজ সম্পন্ন হলেই পার্বতীপুরবাসী অচিরেই দেখতে পাবে আরও একটি বৃহত্তর স্থাপনা। বিপিসি এর একমাত্র বৃহত্তর জ্বালানি তেল ডিপো হবে তখন পার্বতীপুরে। সেদিন আর বেশি দূরে নয়। পার্বতীপুরের উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ রেহানুল হকের নিকট ডিপোর বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে তিনি বলেন, ডিপো থেকে নিরবিচ্ছিন্ন তেল সরবরাহ চলছে। তেল সরবরাহের ক্ষেত্রে এপর্যন্ত কোনোপ্রকার অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া যায়নি বলেও জানান তিনি। #

Print Friendly, PDF & Email

Comments are closed.