ধামইরহাটে শান্তিপূর্ণভাবে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন সম্পন্ন

ধামইরহাট (নওগাঁ) প্রতিনিধি:  নওগাঁর ধামইরহাটে ২য় ধাপে অনুষ্ঠিত উপজেলা নির্বাচন শান্তিপূর্ণভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকাল ৮ টা থেকে একটানা ভোট গ্রহণ চলে বিকেল ৪ টা পর্যন্ত। সরেজমিন বিভিন্ন কেন্দ্র ঘুরে দেখা গেছে, প্রথম ২ ঘন্টা ভোটার উপস্থিত ছিল কম, তবে বেলা বাড়ার সাথে সাথে বাড়তে থাকে ভোটারদের উপস্থিতি। বিশেষ করে আদিবাসী নারী ভোটারদের উপস্থিতি ছিল খুব বেশি। উপজেলা সহকারী রিটার্ণিং অফিসার ইউএনও গনপতি রায় জানান, উপজেলার মোট ৫০ টি কেন্দ্রে ভোট পড়েছে প্রায় ৫০ শতাংশ, যা ১ম ধাপের অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ভোটার উপস্থিতির চেয়েও অনেক বেশি। সকাল ৮ টায় আ’লীগের দলীয় প্রার্থী (নৌকা) আজাহার আলী ও স্বতন্ত্র প্রার্থী হানজালা (আনারস) ও ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী যুবলীগ নেতা আব্দুল হাই দুলাল (তালা প্রতীক) ধামইরহাট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোট প্রদান করেন। অপরদিকে আর এক স্বতন্ত্র হেভিওয়েট প্রার্থী আবু নাসের মো. আফজাল হোসেন দুর্গাপুর ও বাসুদেবপুর আলিম মাদরাসা কেন্দ্রে ভোট প্রদান করেন। এছাড়াও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান প্রার্থী হান্নান দেওয়ান (লাঙ্গল) ধামইরহাট হরিতকীডাঙ্গা কেন্দ্রে ও স্বতন্ত্র প্রার্থী আয়েন উদ্দিন ডালিম (ঘোড়) নিজ নিজ ভোট কেন্দ্রে ভোট প্রদান করেন।
এদিকে আড়ানগর ইউনিয়নের ফতেপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটারদের সাথে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারীর সাথে পুলিশের ধস্তাধস্তি হলে স্থানীয় জিল্লুর রহমান সহ ২ জনকে আটক করা হয়। পতœীতলা সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিকুল ইসলাম জানান, স্থানীয় জিল্লুর রহমানের নেতৃত্বে ফতেপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের বাহিরে ২০/৩০ জন মোটর সাইকেল নিয়ে সরগোল শুনতে পেয়ে পুলিশ বাধা দিয়ে তাদের ছত্রভঙ্গ করার চেষ্টাকালে গাড়ী চালক (কনস্টেবল) পুলিশ সদস্য শরীফুল ইসলাম মারপিটে জখম হয়, বর্তমানে সে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে, ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে ২ জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে এবং মামলার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন বলে তিনি জানান। উল্লেখ্য যে, এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোন কেন্দ্রের ফলাফল পাওয়া যায়নি তবে ভোট গণনা চলছিল।