কুড়িগ্রামের পার্ক পুকুরের নাম ”সুলতানা সরোবর”বহাল রাখার দাবী

কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধিঃ সম্প্রতি কুড়িগ্রাম কালেক্টরেট ভবন সংলগ্ন নিউ টাউন পার্ক’ সংস্কার করণের পর এর নতুন নামকরণ সম্পর্কে সোশ্যাল মিডিয়া সহ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে বিভিন্ন ধরণের অনাকাঙ্খিত মন্তব্য ও সংবাদ পরিবেশিত হচ্ছে। কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক মোছাঃ সুলতানা পারভীন এর সম্মানার্থে কুড়িগ্রামের সাধারণ জনগণ সহ সুধী সমাজ এর নাম দিয়েছে ”সুলতানা সরোবর”। এই নামকরণের পর থেকে মুষ্টিমেয় কিছুসংখ্যক ব্যক্তি সোশ্যাল মিডিয়ায় বিভ্রান্তকর মন্তব্য সহ অনাকাঙ্ঘিত ও অবাঞ্চিত কিছু পোস্ট দেয়ায় কুড়িগ্রামের সাধারণ জনমনে ক্ষোভের সৃস্টি হয়েছে। বিশেষ করে একটি অনলাইন নিউজ মিডিয়ায় ”কাবিখা’র টাকায় পুকুর সংস্কার করে ডিসি’র নামে নামকরণ! শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হলে সমগ্র কুড়িগ্রাম জেলায় এর ব্যাপক প্রতিক্রিয়া পরিলক্ষিত হয়।

১৯৭৮ সালে কুড়িগ্রাম শহরে নিউ টাউন পার্ক পুকুর খনন করা হয়। কুড়িগ্রাম কালেক্টরেট ভবন ও জর্জকোর্ট ভবনের মধ্যবর্তী স্থানটিতে এই পুকুরটি দীর্ঘদিন যাবৎ পরিত্যক্ত ছিল । বিভিন্ন সময় পুকুর পাড়ে অসামাজিক কার্যকলাপ চলার অভিযোগ ওঠে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে পুকুরটি সংস্কার করে এর পাড়ে সৌন্দর্যবর্ধনের উদ্যোগ গ্রহণ করেন বর্তমান জেলা প্রশাসক মোছাঃ সুলতানা পারভীন। তাঁর দক্ষ হাতের ছোঁয়ায় পুকুরটি দ্রুত সংস্কার লাভ করলেও ওয়াকওয়ে সহ আরো অনেক কাজ এখনও বাকী। পুকুর সংস্কারের বিষয়টি সর্ব মহলে প্রশংসিত হলেও এর নামকরন নিয়ে অহেতুক কিছু বির্তক তৈরী করা হচ্ছে বলে অনেকেই মন্তব্য করেছেন।

কুড়িগ্রাম জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের দীর্ঘদিনের জেলা কমান্ডার সিরাজুল ইসলাম টুকু বলেন, বর্তমান জেলা প্রশাসক মোছাঃ সুলতানা পারভীন উলিপুরে মুক্তিযোদ্ধাদের দাবীর প্রতি সংহতি ও অকুন্ঠ সমর্থন সহ সার্বিক সহযোগিতার মনোভাব নিয়ে ”বিজয়মঞ্চ” এর নির্মাণ কাজ বেগবান করেন। এই বিজয় মঞ্চ পরিদর্শনকালে পার্শ্ববর্তি পুকুর সংস্কারের বিষয়টি চলে আসলে আমি সহ কুড়িগ্রামের আরো অনেকেই নিউ টাউন পার্ক পুকুরটি সংস্কারের অনুরোধ জানাই । সেদিনই আমরা জেলা প্রশাসক মহোদয়কে বলেছিলাম, কুড়িগ্রাম কালেক্টরেট সংলগ্ন পার্ক পুকুরটির নাম হবে ”সুলতানা সরোবর”।

বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম টুকু আরো বলেন, অত্যন্ত্য দ্রুত সময়ের মধ্যে জেলা প্রশাসক মহোদয় এই পুকুরটির সংস্কার কাজ করে কুড়িগ্রামবাসীকে কৃতজ্ঞতায় আবদ্ধ করেছেন। একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান হিসাবে কুড়িগ্রামে আন্তরিক ভাবে কাজ করা এই জেলা প্রশাসকের নামে সামান্য একটি পুকুরের নামকরণ নিয়ে যারা বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে তাদের নিশ্চয়ই কোন কুমতলব আছে। নিউ টাউন পার্ক পুকুরের নাম ”সুলতানা সরোবর”ই বহাল থাকবে ইনশাআল্লাহ।

এ প্রসঙ্গে কুড়িগ্রামের সংস্কৃতিমনা এবং এনজিও ব্যক্তিত্ব, বিশ্ব ভাওয়াইয়া পর্ষদ এর সভাপতি খ ম আলী,সম্রাট বলেন, অবহেলিত কুড়িগ্রামের সার্বিক উন্নয়নে আমরা জেলা প্রশাসক মোছাঃ সুলতানা পারভীনের কর্মকান্ডে কৃতজ্ঞ। তিনি তাঁর গতানুগতিক দায়িত্বের বাইরে প্রচুর কাজ করে যাচ্ছেন। আমরা নতুন শহরের বাসিন্দা। কালেক্টরেট সংলগ্ন এই পার্ক পুকুরটি দীর্ঘদিন যাবৎ পরিত্যক্ত ছিল। জেলা প্রশাসকের দপ্তর সংলগ্ন এই পুকুর কেন্দ্রিক বিভিন্ন অসামাজিক কর্মকান্ড আগের ডিসি গণ অবহিত থাকলেও কেউ এর সংস্কার অথবা প্রতিকারের ব্যবস্থা গ্রহণ করেননি। বর্তমান জেলা প্রশাসক মোছাঃ সুলতানা পারভীন স্বপ্রণোদিত হয়ে যা করেছেন তা অবশ্যই প্রশংসা ও ধন্যবাদ পাওয়ার যোগ্য। তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞতা ও সম্মান প্রদর্শন করে যদি কুড়িগ্রামবাসী ”সুলতানা সরোবর” নামে পার্ক পুকুরের নামকরন করে তাহলে আমি যথার্থ নামকরণ করা হয়েছে বলে মনে করি।

কুড়িগ্রাম জেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক, বিশিষ্ট্ ব্যবসায়ী এবং কলেজ মোড়স্থ ”রূপসী বাংলা” হোটেলের স্বত্বাধিকারী জিল্লুর রহমান চৌধুরী টিটু এই নামকরণ প্রসঙ্গে দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, গুটি কয়েক অনলাইন একটিভিস্ট অথবা দুষ্ট লোক মানেই সমগ্র কুড়িগ্রামবাসী নয়। নিরীহ ও ভাল মানুষের জনপদ কুড়িগ্রামে কখনও কোন সম্মানী ব্যক্তিকে অপদস্ত করা হয়না। যারা পার্ক পুকুরের ”সুলতানা সরোবর” নামকরণ নিয়ে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে তাদের জানা উচিত অতীতে অনেক সরকারি কর্মকর্তার নামে কুড়িগ্রামে বিভিন্ন নামকরণ রয়েছে। সাবেক মহকুমা প্রশাসক গওহর সাহেবের নামে ”গওহর পার্ক” ইরশাদুল হক সাহেবের নামে কুড়িগ্রামে রাস্তাও আছে। বর্তমান জেলা প্রশাসক মোছাঃ সুলতানা পারভীন অনেক ভাল কাজ করে জেলাবাসীর অন্তর জয় করেছেন। নিউ টাউন পার্ক পুকুরের নাম ”সুলতানা সরোবর”ই থাকবে। এটা নিয়ে কেউ মিথ্যা প্রোপাগান্ডা ছড়িয়ে হালে পানি পাবে না। কুড়িগ্রামের আরো অসংখ্য স্থাপনা আছে যা কুড়িগ্রামের সম্মানীয় ব্যক্তিবর্গের নাম দিয়ে সম্মান প্রদর্শন করা যেতে পারে।

এছাড়াও কুড়িগ্রামের অনেক পেশাজীবী, শ্রমজীবী,সাধারণ জনতা সহ সুধীজন বলেন কুড়িগ্রাম কালেক্টরেট ভবন সংলগ্ন নিউ টাউন পার্ক এর নাম ”সুলতানা সরোবর” নামকরণ সঠিক ও যথার্থ। এ নিয়ে বিভ্রান্তির কোন অবকাশ না রাখাই উত্তম। #