পার্বতীপুরে নারীর যৌনাঙ্গে ফিস্টুলা প্রতিরোধ, নির্মূল পুনর্বাসনের ওপর দিনব্যাপি কর্মশালা


সোহেল সানী :
নারীর জনন অঙ্গে ফিস্টুলা প্রতিরোধ, নির্মূল এবং পুনর্বাসনের ওপর আজ রবিবার পার্বতীপুরে ল্যাম্ব হাসপাতালে দিনব্যাপি কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকাল ১০টায় হাসপাতালের প্রশিক্ষণ কেন্দ্র হলরুমে একর্মশালার উদ্ধোধন করেন রংপুর বিভাগের স্বাস্থ্য পরিচালক ডাঃ মোস্তফা খালেদ আহমেদ। ল্যাম্ব হাসপাতালের নির্বাহী পরিচালক মিঃ কাইল স্কট এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত কর্মশালায় স্বাগত বক্তব্য দেন, জাতিসংঘ জনসংখ্যা তহবিল এর বাংলাদেশ বিষয়ক প্রতিনিধি ডাঃ অনিমেষ বিশ্বাস। বক্তব্য রাখেন রংপুর স্বাস্থ্য বিভাগীয় উপ-পরিচালক ডাঃ মোঃ হাবিবুর রহমান ও রংপুর মেডিকেল কলেজের বিভাগীয় প্রধান গাইনী এন্ড অবস ডাঃ কামরুন নাহার। একর্মশালায় অংশ নেয় রংপুর বিভাগের ৮ জেলার সিভিল সার্জন, বিভিন্ন মেডিকেল কলেজর সহযোগি অধ্যাপক ও হাসপাতালের বিভাগীয় প্রধানগণ।

তারা হলেন কুড়িগ্রামের সিভিল সার্জন ডাঃ হাবিবুর রহমান, ডাঃ আব্দুল কুদ্দুস দিনাজপুর, এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজের রেজিষ্ট্রার ডাঃ তানজিনা চৌধুরী জলি, ডাঃ রনজিৎ কুমার বর্মণ নীলফামারী, ডাঃ এইচ আনোয়ারুল ইসলাম ঠাকুরগাঁ, ডাঃ হিরম্ব কুমার রায় রংপুর, রংপুর কমিউনিটি মেডিকেল কলেজের বিভাগীয় প্রধান ডাঃ আজিজা বেগম, ডাঃ মোঃ কাসেম আলী লালমনিরহাট, লালমনিরহাট জেলার উপ-পরিচালক, পরিবার পরিকল্পনা ডাঃ মোঃ নজরুল ইসলাম, কুড়িগ্রামের জুনিয়র কনসালটেন্ট (গাইনী এন্ড অবস) ডাঃ মাহবুবা খাতুন কনা ও রংপুর মেডিকেল কলেজের সহকারী অধ্যাপক ডাঃ শারমিন সুলতানা।

কর্মশালায় অংশগ্রহনকারী ডাক্তারগণ বলেন, ফিস্টুলা হলো মাসিকের রাস্তার সাথে মূত্রথলি অথবা মলাশয়ের এক বা একাধিক অস্বাভাবিক ছিদ্র হয়ে যুক্ত হওয়া, এর ফলে মাসিকের রাস্তা দিয়ে সব সময় প্রস্রাব বা পায়খানা অথবা উভয়ই ঝরতে থাকে। তারা আরও বলেন, বিলম্বিত প্রসব বা বাধাগ্রস্ত প্রসব, বাল্য বিবাহ এবং কম বয়সে বাচ্চা নেয়া, জরুরী প্রসুতি সেবার অভাব, তলপেট বা জরায়ুতে অপারেশন, অদক্ষ ধাত্রী/ আত্মীয়/ প্রতিবেশীর মাধ্যমে ডেলিভারী করনো এবং সচেতনতার অভাবে ফিস্টুলা হয়ে থাকে।

বক্তারা আরও বলেন, ফিস্টুলা আক্রান্ত রোগির জীবন অত্যান্ত দুর্বিসহ। এরকম রোগি নিয়ে বাস, ট্রেন কোথাও যাতায়াত করা যায় না। স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে দুরত্বের সৃষ্টি হয়। এক সময় স্বামী স্ত্রীকে পরিত্যাগ করে অনত্র বিয়ে করেন। জন্ম দেয়া ছেলে কিংবা মেয়ে মায়ের সেবায় এগিয়ে আসেন না। এমন দৃষ্টান্ত দেশের বিভিন্ন জায়গায় আছে বলে তারা উল্লেখ করেন।

কর্মশালায় আরও তুলো ধরা হয়, বর্তমানে বাংলাদেশে ফিস্টুলা রোগে আক্রান্ত রোগির সংখ্যা প্রায় ২০ হাজার নারী। এর সাথে প্রতি বছর প্রায় ২ হাজার নতুন রোগি ফিস্টুলা রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। আর বিশ্বে প্রায় ১০ লাখ নারী ফিস্টুলা রোগে ভুগছেন। প্রতি বছর ৫০ হাজার নতুন রোগি যুক্ত হচ্ছে। #