সৈয়দপুর বিমান বন্দরের নাম পরিবর্তনের দাবিতে, ফেসবুক স্ট্যাটাস ভাইরাল


বিজ্ঞপ্তিঃ- মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বর্তমান সরকার সড়ক, রেলপথ ও নৌপথ উন্নয়নের পাশাপাশি মানুষের যাতায়াত ব্যবস্থাকে সহজ নিরাপদ ও নির্বিঘনে করার মাধ্যমে আকাশ পথের ভ্রমনকে অধিকতর গুরুত্ব প্রদান করে এর সম্প্রসারণ ও সংস্কার সাধনে ব্রতী হয়েছেন। যার ফলশ্রুতিতে উত্তরাঞ্চলের একমাত্র প্রাচীন ও পুরাতন সৈয়দপুর বিমানবন্দরটিকে আধুনিকায়ন ও এর পরিধি বাড়ানোর পরিকল্পনা হাতে নিয়েছেন। এ লক্ষ্যে সৈয়দপুরের সীমানা ছাড়িয়ে পার্বতীপুর উপজেলার বিস্তীর্ণ এলাকার জমি অধিগ্রহন করছেন। আমরা সরকারের জনহিতকর মহৎ এ উদ্যোগকে স্বাগত জানাই এবং সেই সাথে সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলতে চাই যে, পার্বতীপুরের বিশাল এলাকার জমাজমি অধিগ্রহণ করা হচ্ছে তাতে হাজার হাজার মানুষ তাদের বাস্তভিটা, ফসলী জমি, কবরস্থান, উপাসনালয় থেকে চিরদিনের জন্য উচ্ছেদ হচ্ছে। যা অত্যন্ত কষ্টকর ও বেদনাদায়ক। বিনিময়ে তাদেরকে যে অর্থ দেয়া হচ্ছে তা নিতান্তই অপ্রতুল ও সামান্য বটে। সবচাইতে বড় কথা যে, প্রতিষ্ঠান নির্মাণের জন্য পার্বতীপুরের মানুষকে তাদের জমাজমি থেকে উচ্ছেদ করা হচ্ছে। সেই প্রতিষ্ঠানটির মালিকানা থেকে যাচ্ছে নীলফামারী জেলা তথা সৈয়দপুরের হাতে। তবু দেশের উন্নয়ন ও এলাকার মানুষের যোগাযোগের সুবিধার্থে আমারা এর চেয়েও বড় ত্যাগ স্বীকার করতে রাজি আছি।
কিন্তু আমরা চাই, যেহেতু সৈয়দপুর বিমান বন্দর সম্প্রসারণ ও আধুনিকায়নে পার্বতীপুরের জমাজমি অধিক পরিমানে অধিগ্রহণ করা হচ্ছে, সেহেতু সৈয়দপুর বিমান বন্দরের নাম যৌথভাবে “সৈয়দপুর-পার্বতীপুর” বিমান বন্দর রাখা হোক অথবা এর পরিবর্তে এমন কোন নামকরণ করা হোক যাতে সৈয়দপুর-পার্বতীপুরের জনগণের যৌথ মালিকানা প্রতিষ্ঠিত হয়। পরিশেষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমাদের আকুল আবেদন, বিষয়টি মানবিক দৃষ্টিতে বিবেচনা করার জন্য আপনার সমীপে নিবেদন করছি। #