বাথরুমে অক্সিজেনের অভাবে কিশোরীর মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক : গোসল করতে গিয়ে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ল ১৫ বছরের এক কিশোরী। ঘটনাটি ঘটেছে মুম্বইয়ের বোরিভালি এলাকায়। প্রাথমিকভাব অনুমান করা হয়, বাথরুমের গিজার থেকে কার্বন মনোঅক্সাইড নির্গত হয়েছিল। যার ফলে বাথরুমের ভিতর অক্সিজেন দ্রুত শেষ হয়ে যায়। তা থেকেই এই মর্মান্তিক মৃত্যু।

ভারতীয় গণমাধ্যম এই সময় জানায়, বরিভালির ফ্ল্যাটে সকালে গোসল করতে গিয়েছিল ধ্রুবী গোহিল নামে ওই কিশোরী। ঘটনাটি ঘটেছে ৫ জানুয়ারি। গোসল করতে গিয়ে অনেক দেরি হচ্ছে দেখে চিন্তায় পড়ে যান তার বাবা-মা। ডাকাডাকি শুরু করলে কোনও আওয়াজ পাওয়া যায়নি। পরে দরজা ভেঙে অচৈতন্য অবস্থায় ধ্রুবীকে পাওয়া যায়। সেই সময় শরীরের ডান দিকটি গরম জলের মধ্যে ছিল বলে জানা গিয়েছে।

মুম্বইয়ের গোরাইয়ের মঙ্গলমূর্তি হাসপাতালের চিকিত্‍সকরা জানিয়েছেন, বাথরুমের গিসার থেকে কার্বন মনোঅক্সাইড নির্গত হয়েই এই বিপত্তি ঘটেছে। অক্সিজেনের অভাবে কিশোরী অচৈতন্য হয়ে যায়। বাথরুমে পড়ে গিয়ে তার মাথায় চোট লাগে। স্ক্যান করে দেখা গিয়েছে, মস্তিষ্কে অক্সিজেনের ঘাটতি ছিল অনেকটা।

অজ্ঞান অবস্থাতেই হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে। ভেন্টিলেটারে রেখেও কিশোরীকে বাঁচানো যায়নি। আরও মর্মান্তিক হল, ধ্রুবীর জন্মদিন ছিল ১০ জানুয়ারি। সেইদিনই সে মারা যায়।#