পার্বতীপুরে এসএসসি ১৯৮৬ ও ৮৭ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের পুণর্মিলনী

Exif_JPEG_420

সোহেল সানী : গত শুক্রবার ও শনিবার পার্বতীপুর ডাকবাংলোতে এসএসসি ১৯৮৬ ও ১৯৮৭ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের ৩৩ বছর পূতিতে দু’দিনের পূণর্মিলনী অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার সকাল ৯টায় শুরু হওয়া দু’দিনের এ পুণর্মিলনী অনুষ্টানে সভাপতিত্ব করেন পার্বতীপুর ইয়ংষ্টার ক্লাবের সভাপতি ও বিশিষ্ট সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব মোঃ আমজাদ হোসেন।

পুণর্মিলনীতে উপস্থিত ছিলেন- আইন মন্ত্রনালয়ের যুগ্ম সচিব রফিকুল হাসান রাজু, সমাজ সেবা অধিদপ্তর নারায়নগঞ্জের উপ-পরিচালক আসাদুজ্জামান সরদার, মহাখালী জাতীয় ক্যান্সার ইন্সটিটিউট ও হাসপাতালের সহকারী অধ্যাপক ডাঃ রনদা প্রসাদ রায়, এলজিইডি দিনাজপুরে প্রধান প্রকৌশলী আবু জাফর সিদ্দিক সুইট, জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউটের ডাঃ পিনাকী রঞ্জন দাস, দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সহকারী অধ্যাপক ডাঃ তাপস কুমার পাল ও রাশিয়া প্রবাসী ড. গৌরাঙ্গ সরকার গোলাপ প্রমুখ। পূণর্মিলনী অনুষ্ঠানে আগত অতিথিবৃন্দ পার্বতীপুর উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে শিক্ষা গ্রহণ করে বর্তমানে দেশের গুরুত্বপূর্ণ সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত থেকে দেশের উন্নয়নে অবদান রাখছেন। অনুষ্ঠান চলাকালে পার্বতীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোছাঃ শাহনাজ মিথুন মুন্নী এতে যোগ দেন। ১৯৮৬ ও ১৯৮৭ সালের এসএসসি ব্যাচের দু’দিনের অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন- পার্বতীপুর ইয়ংষ্টার ক্লাবের সাংগঠনিক সম্পাদক মামুনুর রশিদ মামুন।

পুণর্মিলনী অনুষ্ঠান শুরুর আগে গত এক সপ্তাহ ধরে অনুষ্ঠানস্থল রং বে-রংগের পোষ্টার, ব্যানার, রঙ্গিন বেলুন দিয়ে সাজানো হয়। এছাড়াও অভ্যাগতদের বিনোদনের জন্য নানা ধরনের গান বাজনা, নাচ ও কৌতুকে অংশ নিয়ে এক সময়ের সতীর্থ বন্ধুরা আনন্দে উচ্ছিত হয়ে উঠে।