এসএসসিতে ২৪টি ও এইচএসসিতে ৩০টি অ্যাসাইনমেন্ট জমা দিতে হবে


অনলাইন ডেস্ক : কোভিড-১‌৯ পরিস্থিতি বিবেচনায় এসএসসি ও এইচএসসি পর্যায়ের সব বিষয়ের পরীক্ষা না নিয়ে শিক্ষার্থীদের গ্রুপভিত্তিক তিনটি নৈর্বাচনিক বিষয়ের পরীক্ষা নেওয়ার কথা জানিয়েছে সরকার। এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার্থীরা ১৮ জুলাই থেকে শুরু করে ১২ সপ্তাহে ২৪টি এবং এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার্থীরা ২৬ জুলাই থেকে শুরু করে ৩০টি অ্যাসাইনমেন্ট জমা দেবেন। অর্জনের বিষয়ে পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি।

শিক্ষামন্ত্রী জানান, এসএসসি পরীক্ষার্থীদের তিনটি বিষয়ে প্রতি সপ্তাহে দুটি করে অ্যাসাইনমেন্ট দেওয়া হবে। আর এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের তিনটি বিষয়ে (ছয়টি পত্রে) প্রতিটি পত্রে পাঁচটি করে মোট ৩০টি অ্যাসাইনমেন্ট দেওয়া হবে। শিক্ষার্থীদেরকে আবশ্যিক ও চতুর্থ বিষয়ের কোনো অ্যাসাইনমেন্ট দেওয়া হবে না।

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি জানান, এসএসসি ও এইচএসসি বা সমমান পর্যায়ের শিক্ষার্থীরা আগে বাংলা, ইংরেজি, গণিত, আইসিটি ও র্ধর্ম বিষয়গুলো পড়েছে। এই বিষয়গুলো জেএসসি, জেডিসি বা এসএসসি সমমান পরীক্ষায় মূল্যায়ন করা হয়েছে। কিন্তু, গ্রুপভিত্তিক বিষয়গুলো বোর্ডের পরীক্ষার মাধ্যমে মূল্যায়ন করা হয়নি। সে কারণে এই বিষয়গুলোর মূল্যায়ন আবশ্যক।

দেশের করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে সংক্ষিপ্ত সিলেবাস অনুযায়ী পরীক্ষার নম্বর ও সময় কমিয়ে গ্রুপভিত্তিক তিন বিষয়ের এসএসসি পরীক্ষা নভেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে ও এইচএসসি পরীক্ষা ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহে নেওয়ার পরিকল্পনা ও প্রস্তুতি সরকারের রয়েছে বলে জানান শিক্ষামন্ত্রী।

ডা. দীপু মনি জানান, কোভিড-১৯ পরিস্থিতি বিবেচনায় পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব না হলে পরীক্ষার্থীর পূর্ববর্তী জেএসসি, জেডিসি বা এসএসসি পরীক্ষার নম্বরের ভিত্তিতে সাবজেক্ট ম্যাপিং করে এবং অ্যাসাইনমেন্টের মাধ্যমে অথবা শুধুমাত্র সাবজেক্ট ম্যাপিং করে এসএসসি ও এইচএসসি সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হবে।

আসন্ন পবিত্র ঈদুল আজহার পর এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফরম পূরণ অনলাইনে শুরু হবে।